শনিবার, আগস্ট ৩, ২০১৯




১৫ আগস্ট বিশ্বের ইতিহাসে নির্মমতার এক কালো অধ্যায়………এড.নুরুল আমিন রুহুল এমপি

নূরে আলম নূরীঃ  জাতীয় শোক দিবস-জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষ্যে চাঁদপুর-২ নির্বাচনী আসনের সংসদ সদস্য এড. নুরুল আমিন রুহুল বলেন, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বিশ্বের ইতিহাসে নির্মমতার এক কালো অধ্যায়।

খুনি হত্যাকারীরা বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করতে সক্ষম হলেও বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও চেতনাকে হত্যা করতে পারেনি। হত্যা করতে পারেনি বঙ্গবন্ধুর লালিত স্বপ্নকে। বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশের জনগণের যে মুক্তির স্বপ্ন দেখেছিলেন তারই কন্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনার হাত ধরে বাংলাদেশ আজ সেই লক্ষ্যেই এগিয়ে যাচ্ছে। বঙ্গবন্ধুর ক্ষুধা ও দারি‌দ্র্যমুক্ত সোনার বাংলা বিনির্মাণের স্বপ্ন দেখেছিলেন। বঙ্গবন্ধুকন্যা আজ ক্ষুধা ও দারিদ্র্যকে জয় করে বাংলাদেশকে বিশ্বের দরবারে একটি উন্নয়নশীল, মর্যাদাবান জাতি হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছেন।

তিনি আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও চেতনাকে ধারণ করে জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের মহাসড়কে। সারা বিশ্বে বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের রোল মডেল। বাঙালি জাতি বঙ্গবন্ধুকন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ২০৪১ সালের মধ্যে বঙ্গবন্ধুর স্বাধীন বাংলাদেশকে উন্নত ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশে পরিণত করবে। সেই স্বপ্নময় ভবিষ্যতের বিনির্মাণের জন্য জাতি-ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সবাইকে বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে।

মতলব উত্তর উপজেলা আওয়ামীলীগের উদ্যগে জাতীয় শোক দিবস ও  ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলা যথাযোগ্য মর্যাদায় পালনের লক্ষে প্রস্তুতিমূলক সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথাগুলো বলেছেন।

প্রধান অতিথি আরো বলেন, শোক দিবসে বঙ্গবন্ধুর নামে চাঁদাবাজি করতে পাড়বে না কারন চাঁদাবাজি জননেত্রী শেখ হাসিনা পছন্দ করেনা আমিও তা পছন্দ করিনা। ১৫ আগষ্ট একএকটি ইউনিয়নে একটি করে স্থান থাকবে। এভাবে ১৫ টি স্থানে গিয়ে আমি ও থানা কমিটি উপস্থিত থাকবো।  দলের ভিতর কোন কোন্দল থাকতে পাড়বে না।

শনিবার উপজেলার মায়া বীরবিক্রম অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত প্রস্তুতিমূলক সভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা আওয়ামীলীগের  সভাপতি আলহাজ্ব  এ্যাডভোট রুহুল আমিন। উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা এম এ কুদ্দুসের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি গিয়াস উদ্দিন চৌধুরী, শহীদ উল্লাহ প্রধান, যুগ্ন সম্পাদক ও সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান আয়ুব আলী গাজী, আইন বিষয়ক সম্পাদক এ্যাডভোকেট আমানউল্লাহ, এখলাছপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি রেহান উদ্দিন নেতা, মোহনপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি আব্দুল হাই, দূর্গাপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ  সভাপতি মাহবুব প্রধান, বাগানবাড়ি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুস ছাত্তার, গজরা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পাদক ওয়াহিদুজ্জামান ওয়াহিদ, ফতেপুর পশ্চিম ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আলাউদ্দিন সরকার,  ছেংগারচর পৌর আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মনির হোসেন, কলমাকান্দা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান আবদুল কাদির মোল্লা, ফতেপুর পূর্ব ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক কাজী সালাউদ্দিন, সুলতানাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক মজিবুর রহমান, ষাটনল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক আবু হানিফ, স্যাদুল্লাপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি শাহজাহান মিয়া, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক আহবায়ক এডভোকেট মহসিন, মহিলা আওয়ামীলীগ নেত্রী তাছলিমা আক্তার, উপজেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম, যুবলীগের সহ সভাপতি কামরুজ্জামান ইয়ার, ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম আহবায়ক মিরাজ খালিদ প্রমুখ।

পরে জাতীয় শোক দিবস ও ২১ আগষ্ট যথাযোগ্য মর্যাদায় পালনের জন্য প্রস্তুতি সভা শেষ  মিলাদ ও দোয়া করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category