রবিবার, মার্চ ৩১, ২০১৯




হাজীগঞ্জে  মেয়রের কাঁধে কাউন্সিলারের লাশ

 

স্টাফ রিপোর্টার:  হাজীগঞ্জ পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের নির্বাচিত কাউন্সিলর, রাজনীতিবীদ ও শিক্ষানুরাগী মো. আবুল কাশেম (৬০) ইন্তেকাল করেছেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

রোববার সকাল ১০টায় নিজ বাড়িতে তিনি অসুস্থতাজনিত কারণে ইন্তেকাল করেন। পৌর মেয়র আ.স.ম মাহবুবু-উল-আলম তার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন।

আবুল কাশেম পৌরসভাধীন ৮নং ওয়ার্ড টোরাগড় গ্রামের সরদার বাড়ির মৃত ইউছুফ আলী বেপারীর ছেলে। তিনি ওই ওয়ার্ডের ৪ বারের নির্বাচিত কাউন্সিলর ছিলেন। ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান (মেয়র) হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেছেন।

এছাড়াও পৌর বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতিসহ বিভিন্ন পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ৩ ছেলে ও ১ মেয়ে রেখে গেছেন।

এদিকে কাউন্সিলর আবুল কাশেমের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন সাবেক সংসদ সদস্য এম.এ.মতিন, উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যাপক আবদুর রশিদ মজুমদার, নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান গাজী মাইনুদ্দিন, সাবেক মেয়র আবদুল মান্নান খান বাচ্চুসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতারা।

মরহুমের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেন হাজীগঞ্জ পৌরসভার সম্মানিত মেয়র জনাব আ.স.ম. মাহবুব-উল আলম লিপন মহোদয়। তিনি শোক সন্তোপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন। এ ছাড়াও পৌরসভার মাসিক সভায় হাজীগঞ্জ পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ড-এর কাউন্সিলর মো. আবুল কাশেম এর মৃত্যুতে শোক প্রস্তাব করেন। এসময় পৌর পরিষদের মেয়র, কাউন্সিলর ও সকল কর্মকর্তা কর্মচারীগন দাঁড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করেন। সভায় পৌর কাউন্সিলর ও পৌর পরিষদের কর্মকর্তা কর্মচারীগন মরহুমের স্মৃতিচারণ করেন।

পরে বাদ আছর হাজীগঞ্জ ঐতিহাসিক বড় মসজিদ ১ম জানাযা এবং হাজীগঞ্জ মডেল সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে মরহুমের ২য় জানাযা নামাজ অনুষ্টিত হয়।

জানাযার নামাজ শেষে হাজীগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আ.স.ম মাহবুব উল আলম লিপন নিজে মরহুমের লাশের খাটটি কাঁধে নিয়ে নেন। এসময় হাজীগঞ্জ পাইলট সরকারী হাইস্কুল এন্ড কলেজ মাঠে শোকের ছায়া নেমে আসে। পরে মরহুমের নিজ পারিবারিক কবরস্থানে দাপন সম্পন্ন হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category