শনিবার, নভেম্বর ৯, ২০১৯




সোশ্যাল মিডিয়ায় কচুয়া-ঢাকা সুরমা বাসস্টাফ কর্তৃক যাত্রীকে মারধরের ঘটনায় ভিডিও ভাইরাল

স্টাফ রিপোর্টারঃ কচুয়া-ঢাকা সুরমা বাসস্টাফ কর্তৃক যাত্রীকে মারধরের ঘটনায় ফেসবুক সোশ্যাল মিডিয়ার ভিডিও ফুটেজ ভাইরাল হয়ে প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে।

প্রকাশিত ভিডিও ফুটেজে মানুষের হাজার হাজার ভিউ,শেয়ার লাইক ও কমেন্টে সুরমা ট্রান্সপোর্ট পরিবহন দীর্ঘ বছর থেকে একক আধিপত্ব বিস্তারে যাত্রী-জনসাধারনকে প্রতিনিয়ত লাঞ্চিত,কচুয়া-সাচার গরীপুর সড়কে চুরি,ছিন্তাই,ডাকাতী ঘটনার সাথে জড়িতসহ তাদের বহু অনিয়ম দুর্নীতি প্রতিবাদের ঝড় উঠে।

ভাইরালকৃত ভিডিও ফুটেজ ঘটনায় শুক্রবার (৮নভেম্বর) বাদ-মাগরিব ঢাকা থেকে ছেড়ে আশা সুরমা ট্রান্সপোর্টের ঢাকা মেট্রো ব- ১৬৫৪ কচুয়া উপজেলার বায়েক মোড়ে আসলে ড্রাইবার গাড়ীটি থামিয়ে যাত্রী উঠায়। এসময় ঢাকা থেকে আশা যাত্রী রহিমানগর বিএবি উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মেছবাহুল হক তারেক কে সিট থেকে উঠিয়ে বায়েক মোড়ের যাত্রীদেরকে বাসানোর চেস্টা চালায় গাড়ীর কন্ট্রাক্টর। তারেক বাসস্টাফদের এ অন্যায়ের প্রতিবাদ করায় তাকে এ কন্ট্রাক্টরসহ ওই যাত্রীভেশী সন্ত্রাসীরা মারধর করে। এতেও বাসস্টাফরা ক্ষান্ত না হয়ে কচুয়া বাসট্যান্ডে গাড়ীটি আসলে পূনরায় কচুয়ার কতিপয় সন্ত্রাসী দিয়ে তারেক কে মারধর করে। তারেক কচুয়া প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি সাংবাদিক মফিজুল ইসলাম বাবুলের ছোট পুত্র। এ সময় বাবুল জরুরী কাজে ঢাকা যাওয়ার সময় জানতে পারে এবং পথেই ওই গাড়ীটি প্রতিমধ্যে থামিয়ে বিষয়টি তারেক ও যাত্রীদের বক্তব্য ভিডিও ফুটেজে ধারন করেন এবং তা শনিবার (৯নভেম্বর) ফেসবুকে ছেড়ে দিলে ভাইরাল হয়ে পড়ে।

ঘটনাটি সাংবাদিক মফিজুল ইসলাম বাবুল সুরমা পরিবহনের মালিক সমিতি ও শ্রমিক নেতৃবৃন্দদেরকে অবগত করলে কঠিন বিচার করে দেবে বলে আশ্বাস করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category