বৃহস্পতিবার, আগস্ট ২০, ২০২০




যেসব দেশে মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক

মো. নাছির উদ্দীন : বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ হ্রাস করতে বিশ্বের প্রায় ৫০টির বেশি দেশের নাগরিকদের মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। তাছাড়া মাস্ক না পরার দায়ে জরিমানাও করা হচ্ছে বিভিন্ন দেশে। যদিও মাস্ক ব্যবহারে সংক্রমণ রোধের বিষয়ে মতানৈক্য রয়েছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা মানুষদের মেডিক্যাল মাস্ক ব্যবহারের পরামর্শ দিয়েছেন। তাছাড়া স্বাস্থকর্মী, উপসর্গ দেখা দেয়া ব্যাক্তি, বয়স্ক ও দুর্বল স্বাস্থ্যের অধিকারী মানুষদেরও মাস্ক পরিধানের পরামর্শ দেয়া হয়েছে। খবর আলজাজিরার।
সিঙ্গাপুর ও যুক্তরাজ্যের সরকার জনগণকে মাস্ক ব্যবহারের আহ্বান জানিয়েছেন। যুক্তরাষ্ট্র সরকারও একই ব্যবস্থা নিয়েছেন। অন্যদিকে চীন, তাইওয়ান এবং হংকং করোনাভাইরাস মহামারির আগে থেকেই মাস্ক ব্যবহারে অভ্যস্ত ছিল। করোনাভাইরাস প্রতিরোধে প্রথমদিক থেকেই ভেনিজুয়েলায় মাস্ক বাধ্যতামূলক করা হয়। ভিয়েতনামেও মার্চের ১৬ তারিখ থেকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। আর চেক রিপাবলিকানরা ১৮ মার্চ এ সিদ্ধান্ত নেয়।
এরপর থেকে অনেক দেশেই মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হয়। এসব দেশসমূহ হলো- স্লোভকিয়া, বসনিয়া-হার্জেগোভিয়া, কলোম্বিয়া, সংযুক্ত আরব আমিরাত, কিউবা, ইকুয়েডর, অস্ট্রেলিয়া, মরক্কো, তুরস্ক, চিলি, ক্যামেরুন, অ্যাঙ্গেলা, বেনিন, ইথিওপিয়া, গেবন, কেনিয়া, লাইবেরিয়া, রুয়ান্ডা, সিরিয়ালিওন, গাম্বিয়া, ইসরাইল, আর্জেন্টিনা,পোল্যান্ড, লুক্সেমবার্গ, জ্যামাইকা, জার্মানি, বাহরাইন, কাতার, হন্ডুরাস, উগান্ডা, ফ্রান্স, স্পেন, দক্ষিণ কোরিয়া, লেবানন, পাকিস্তান এবং ইতালি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category