শুক্রবার, মে ১৫, ২০২০




মহামারী করোনায় কর্ম…… প্রফেসর মোঃ জাকির হোসেন জামাল

 

জগতের চক্ষুষ্মান ব্যক্তি সবচেয়ে বেশী সৌভাগ্যবান
অন্ধজন বড়ই অসহায়,খুবই দূর্ভাগ্যবান,
চোখ থেকেও যে দেখে না,সে চরম মূর্খ পদার্থের ছায়া
অন্তর চক্ষু পর্দা-ঢাকা,জিন্দা-লাশের কায়া।

বোবা বধির হতচ্ছাড়া কিছুই শুনে না
কতো প্রয়োজন! জীবনের সুত্র সে মোটেই বোঝে না,
কর্ণ দিয়ে স্বাভাবিক ভাবে সব শুনে বুঝে নেয়
কানে শুনে অন্যের ক্ষতি,সদিচ্ছার বিপর্যয়।

মন আছে মনন আছে,সবার মাঝে বিরাজমান
মন আছে তবু,ভালো নেই মন,ভালোর অপেক্ষমান,
দেহ ভালো থাকলে মন ভালো, ক্রিয়া-প্রতিক্রিয়া প্রভাব
কলুষমুক্ত মন চাই, সতেজ শুদ্ধ আপন-ভাব।

জ্ঞান বিদ্যা চেতনার অভাব, বোধশক্তি নাই
চিন্তাশক্তি স্মৃতিশক্তিতে মরীচিকার গন্ধ পাই,
স্নায়ুশক্তি সতেজ করো, হও সতর্ক-সাবধান
দ্বন্দ্বের অবসান, চেতনার বিকাশ,পরমের জয়গান।

কর্মের স্বভাব,পরিধি আমার সবই অচেনা
মানবদরদী মূল্যবোধ বীরত্ব-গাঁথা কর্ম প্রয়োজন চেনা,
মহৎ প্রাণের অন্তর সাদা,কোথাও নাই দাগ
মহামানবের জীবন থেকে,শিক্ষায় বসাও ভাগ।

ইউরেনিয়াম,প্লুটোনিয়াম পরমাণু শক্তিতে বলীয়ান
হত্যাযজ্ঞ অহংকার দম্ভ নিমিষেই হলো বিলীন,
আণুবীক্ষণিক করোনা,অদৃশ্য শক্তি নিয়ে পরোয়ানা
কোনো শক্তি নেই থামায়, মৃত্যু-মৃত্যু-মৃত্যু,ঔষধ অজানা।

জীববৃত্তি গুন দিয়ে সৃষ্ট ধরায় সকল প্রাণি
জীবনের জন্যে বিবেকহীন পশু,নিয়ে কদাকার গ্লানি
সৃষ্টি কূলের শ্রেষ্ঠ জীব,শ্রেষ্ঠ উপহার বিবেক
বিবেক হারিয়ে শয়তানে-বন্ধুত্ব,বোধ নাহি,শুধু আবেগ।

সীমালঙ্ঘন অস্বাভাবিক, ফল মারাত্মক পরিণতি
পাপের বোঝা পূর্ণ হলে, নাইকো কোন গতি,
সৎকর্ম করো জীবনভর,হিংসা-বিদ্বেষ ছাড়ো
সুন্দর জীবনের সুখবর পাবে, সত্যের ধারা ধরো।

প্রলয়ঙ্কারী-মহামারী কালে থাকি সবাই ঘরে
মন্দ লোকের সংস্পর্শ ত্যাগ,সর্বোচ্চ ধৈর্য্য ধরে,
নির্বোধ কলুষিতজন পরিত্যাজ্য,খাটাও তোমার বুদ্ধি
বাহির থেকে কেউ আসবেনা,জাগাও আত্মশুদ্ধি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category