বুধবার, ডিসেম্বর ১৯, ২০১৮




ভারতকে টপকে সিরিজে অস্ট্রেলিয়া

ক্রীড়া ডেস্কঃ   দুর্দান্তভাবে সিরিজ শুরু করে দ্বিতীয় টেস্টেই মুখ থুবড়ে পড়ল ভারত। ম্যাচের চিত্র পাল্টাতে শেসদিনে দারুণ কিছুই করতে হত ভারতকে। কিন্তু পারেনি বিরটা কোহলির দল। সফরকারীদের লেজ দ্রæত গুটিয়ে পার্থ টেস্টে ১৪৬ রানের বড় জয় পেয়েছে অস্ট্রেলিয়া। ৫ ম্যাচের সিরিজে এখন ১-১ সমতা।

জিততে হলে ২৮৭ রান করতে হত ভারতকে। ৫ উইকেটে ১১২ রান নিয়ে শেষ দিন শুরু করে তারা। আগের দিনের অপরাজিত হনুমা বিহারি ও রিশাভ পান্তের জুটি ভাঙার পর আর এগোতে পারেনি। এদিন মাত্র ১৫ ওভারেই সফরকারীদের ১৪০ রানে গুটিয়ে ম্যাচ শেষ করে দেয় অস্ট্রেলিয়া।
বিহারিকে ফিরিয়ে জুটি ভাঙেন মিচেল স্টার্ক, পান্তকে ফেরান নাথান লায়ন। শেষ তিন ব্যাটসম্যান রানের দেখাই পাননি। অস্ট্রেলিয়ান বোলাররা ছিলেন রুদ্র রূপে। ২১ রানের মধ্যে শেষ ৫ উইকেট হারায় ভারত। গতিময় ও বাউন্সি উইকেটে দারুণ অফ স্পিনের প্রদর্শনীতে ম্যাচে ৮ উইকেট নিয়ে ম্যাচসেরা হন লায়ন। অথচ এই ম্যাচে কোন স্পিনার খেলায়নি ভারত।
ম্যাচ শেষে এমন ভুলের কথা স্বীকারও করেছেন অধিনায়ক কোহলি, ‘আমরা যখন পিচটা দেখলাম, আমাদের মনে হয়েছিল চারজন পেসারই যথেষ্ট টেস্টটা জেতার জন্য। রবীন্দ্র জাদেজাকে নেওয়ার কথা আমাদের মাথাতেই আসেনি। কিন্তু ওদিকে নাথান লায়ন অনেক ভালো বল করেছে। স্পিন দিয়ে যে এই পিচে জেতা যাবে সেটা আমরা ভেবেই দেখিনি।’ ম্যাচ হারলেও দলের পারফরম্যান্স কোহলির দৃষ্টিতে অখুশি হওয়ার মতো কিছু নয়, ‘আমার পেসাররা যেভাবে দ্বিতীয় ইনিংসে নিয়ন্ত্রিতভাবে বল করে গেছে আর চাপ সৃষ্টি করে গেছে, তাঁর জন্য আমি অনেক গর্বিত।’
২৬ ডিসেম্বর ‘বক্সিং ডে’তে শুরু হবে সিরিজের তৃতীয় টেস্ট। এই ম্যাচে নিশ্চয় এমন ভুল করতে চাইবেন না কোহলি।
অস্ট্রেলিয়া: ৩২৬ ও ২৪৩। ভারত: ২৮৩ ও (লক্ষ্য ২৮৭) ৫৬ ওভারে ১৪০ (আগের দিন ১১২/৫) (বিহারি
২৮, পান্ত ৩০, উমেশ ২, ইশান্ত ০, শামি ০*, বুমরাহ ০; স্টার্ক ৩/৪৬, হ্যাজেলউড ২/২৪, কামিন্স ২/২৫, লায়ন ৩/৩৯)। ফল: অস্ট্রেলিয়া ১৪৬ রানে জয়ী। সিরিজ: ৪ ম্যাচ সিরিজে ১-১ সমতা, ম্যাচসেরা: নাথান লায়ন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category