মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০২০




ফরিদগঞ্জ বাজারে প্রায়শই প্রকাশ্যে অস্রধারী যুবকের মহড়া বন্ধ করবে কে ?

এস.এম ইকবাল: ফরিদগঞ্জ বাজারে প্রকাশ্যে অ¯্রধারী যুবকরে মহড়া দেখে আতংকগ্রস্ত ব্যবসায়ীদের আতংক এখনো কাটেনি।
নিরুপায় হয়ে ব্যবসায়ীরা ওই ঘটনার প্রতিবাদে জরুরী
সভা করা ছাড়া এবার ফরিদগঞ্জ বাজারের শান্তি ও ব্যবসায়ীদের নিরাপত্তা চেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছেস্বারকলিপি দিয়েছে ফরিদগঞ্জ বাজারের ব্যবসায়ীরা।

১৮ ফেব্রুয়ারী মঙ্গলবারউক্ত ৩শ ৭৬ জনের স্বাক্ষরিত স্বারকলিপি দিয়েছে। এ নিয়ে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীরা বলছে , ফরিদগঞ্জ বাজারে প্রকাশ্যে প্রায়শই অস্রধারীরা যুবকের মহড়া বন্ধ করবে কে ?
শুধু তাই একই দাবিতে ওই স্বারকলিপির অনুলিপি
দিয়েছে চাঁদপুর ৪ (ফরিদগঞ্জ) আসনের সাংসদ মুহম্মদ
শফিকুর সহ চাঁদপুরের জেলা প্রশাসক ও জেলা পুলিশ
সুপার, উপজেলা চেয়ারম্যান ও ফরিদগঞ্জ পৌরসভার মেয়র ও থানার ওসি বরাবরে।

ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ী ও তাদের স্বাক্ষরিত স্বারকলিপির
মাধ্যমে জানায়, ঐতিয্যবাহী ফরিদগঞ্জ বাজারে সহস্রাধিক

ব্যবসায়ী রয়েছে। ব্যবসায়ীরা দীর্ঘদিন সুনামের সাথে শান্তিপূর্ন ভাবে এ বাজারে ব্যবসা করে আসছিল। গত ২০১৩ সালের ২৫ অক্টোবর সরকারী দল আওয়ামীলীগ ও সরকার বিরোধী বিএনপির সাথে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে সেই সময়ে ব্যবসায়ীরা ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার পর রাজনীতিক দলের শান্তিপূর্ন ভাবে বিভিন্ন কর্মসূচীতে কোন ক্ষতি হয়নি। কিন্তু হঠাৎ করে চলতি মাসের গত ১৩ ফেব্রæয়ারী সাপ্তাহিক হাটের দিন ফরিদগঞ্জ বাজারে একদল অস্রধারী আসছিল।

গত ২০১৩ সালের ২৫ অক্টোবর সরকারী দল আওয়ামীলীগ ও সরকার বিরোধী বিএনপির সাথে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে সেই সময়ে ব্যবসায়ীরা ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার পর রাজনীতিক দলের শান্তিপূর্ন ভাবে বিভিন্ন কর্মসূচীতে কোন ক্ষতি হয়নি। কিন্তু হঠাৎ করে চলতি মাসের গত ১৩ ফেব্রæয়ারী সাপ্তাহিক হাটের দিন ফরিদগঞ্জ বাজারে একদল অস্রধারী যুবক হঠাৎ তাদের অ¯্ররে মহড়া নিয়ে বাজারের শান্তিপূর্ন পরিবেশ বিনষ্ট করেই ক্ষান্ত হয়নি। মুখোশ পরিহিত ওই সন্ত্রাসীরা
তাদের অস্্র প্রদর্শন করে ভয়ভীতি দেখিয়ে বাজারের
ব্যবসায়ীদের দোকান বন্ধ রাখতে বাধ্য করেছে। এতে করে
আতংকিত ব্যবসায়ীরা তাদের প্রতিষ্ঠান বন্ধ করায় ব্যপক
ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এ ছাড়া সন্ত্রাসীদের হাতে বেশ
কয়জন ব্যবসায়ী লাঞ্চিত হয়েছে বলে স্বারকলিপিতে
উল্লেখ করা হয়েছে।

এ স্বারক লিপি দেয়ার সত্যতা নিশ্চিত করে ফরিদগঞ্জ
বাজার ব্যবসায়ী কমিটির আহবায়ক অহিদুর রহমান
পাটওয়্রাী বলেন, সরকারী প্রশাসনের হস্তক্ষেপ চেয়ে
এলাকার সাংসদ সহ সংশ্লিষ্টদের প্রতি আবেদন
জানিয়ে উক্ত বাজারের ৩শ ৭৬ জন ব্যবসায়ীর স্বাক্ষর করা
স্মারক লিপি দিয়েছি।

যোগাযোগ করা হলে ফরিদগঞ্জের ইউএনও শিউলী হরি
জানান, ফরিদগঞ্জ বাজারের ব্যবসায়ীরা গতকাল আমাকে
একটি স্বারক লিপি দিয়েছে। যুবক হঠাৎ তাদের
অ¯্ররে মহড়া নিয়ে বাজারের শান্তিপূর্ন পরিবেশ বিনষ্ট
করেই ক্ষান্ত হয়নি। মুখোশ পরিহিত ওই সন্ত্রাসীরা
তাদের অস্র প্রদর্শন করে ভয়ভীতি দেখিয়ে বাজারের
ব্যবসায়ীদের দোকান বন্ধ রাখতে বাধ্য করেছে। এতে করে
আতংকিত ব্যবসায়ীরা তাদের প্রতিষ্ঠান বন্ধ করায় ব্যপক
ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এ ছাড়া সন্ত্রাসীদের হাতে বেশ
কয়জন ব্যবসায়ী লাঞ্চিত হয়েছে বলে স্বারকলিপিতে
উল্লেখ করা হয়েছে।

এ স্বারক লিপি দেয়ার সত্যতা নিশ্চিত করে ফরিদগঞ্জ
বাজার ব্যবসায়ী কমিটির আহবায়ক অহিদুর রহমান
পাটওয়্রাী বলেন, সরকারী প্রশাসনের হস্তক্ষেপ চেয়ে
এলাকার সাংসদ সহ সংশ্লিষ্টদের প্রতি আবেদন
জানিয়ে উক্ত বাজারের ৩শ ৭৬ জন ব্যবসায়ীর স্বাক্ষর করা
স্মারক লিপি দিয়েছি। যোগাযোগ করা হলে ফরিদগঞ্জের ইউএনও শিউলী হরি জানান, ফরিদগঞ্জ বাজারের ব্যবসায়ীরা গতকাল আমাকে একটি স্বারক লিপি দিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category