শুক্রবার, অক্টোবর ১৮, ২০১৯




দেশের উন্নয়নে সকলের সহযোগিতা থাকতে হবে…….. জাহাঙ্গীর হোসেন বেপারী

হাইমচর উপজেলা প্রতিনিধিঃ ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে জননেত্রী শেখ হাসিনা নিরলস ভাবে দিনরাত কঠোর পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। প্রত্যেকেই যদি নিজ নিজ অবস্থান থেকে একটু সহযোগিতা করি তবেই উন্নয়ন আরো গতিশীল করা সম্ভব হবে। তাই এ উন্নয়নে সকলের সহযোগিতা থাকতে হবে। সাথে সাথে হাইমচর উপজেলাকে বিশ্বের দরবারে একটি আধুনিক ও মডেল উপজেলা হিসেবে দাড় করাতে হলে চাই সময়োপযোগী কার্যকর প্রদক্ষেপ। সেই চিন্তা চেতনা ধ্যান ধারণা বুকে লালন করে আপনাদের দোয়া নিতে জুমার দিনে আপনাদের সামনে উপস্থিত হয়েছি।
আজ শুক্রবার (১৮ অক্টোবর) উপজেলার পূর্ব চরভাঙ্গা ভুঁইয়া-গাজী বাড়ি জামে মসজিদে হাইমচর উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক ও আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী জনাব মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেন বেপারী সৌজন্য সাক্ষাতে এ কথাগুলো বলছিলেন। নামাজ শেষে পূর্ব চরভাঙ্গা ইসলামি পাঠাগারে উপস্থিত ধর্ম প্রান মুসল্লী ও পাঠাগারের সদস্যদের উদ্দেশ্যে বলেন- শিক্ষামন্ত্রী আলহাজ্ব ডাঃ দিপু মনি শিক্ষা বিষয়ক উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে সর্বদা এগিয়ে আসেন। তাঁর মাধ্যমে এই পাঠাগারের সার্বিক উন্নয়ন ও সর্বদা পাশে থাকার আপ্রান চেষ্টা করবো।
জাহাঙ্গীর হোসেন বেপারী ইতিমধ্যেই সকল মহলের কাছে বেশ জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন। তিনি এলাকায় বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও ক্রীড়ানুষ্ঠানসহ নানা ধরনের জন সমস্যায় নিজেকে নিবেদিত প্রাণ হিসেবে তুলে ধরার চেষ্টা করছেন।
সরেজমিন প্রতিবেদনে স্থানীয় এলকাবাসীর মতামতে জানাযায়, জাহাঙ্গীর হোসেন বেপারী তরুন প্রজন্মের কাছে বেশ জনপ্রিয় একটি নাম। পারিবারিকভাবেই আওয়ামী পরিবার থেকে উঠে আসা জাহাঙ্গীর হোসেন বেপারী ছোট বেলা থেকেই বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের প্রতি গভির ভালোবাসা অন্তরে লালন করতেন। খেলাধুলার প্রতি ছিলো তার বিশেষ ভালোবাসা। তিনি এক সময় জাতীয় পর্যায়ে অনুষ্ঠিত সকল টুর্ণামেন্টে হাইমচর উপজেলা ফুটবল দল, কিক্রেট দলের অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করেছেন।
এমনকি তিনি ব্যাডমিন্টন খেলায়ও পুরো চাঁদপুর জেলায় ছিলেন অন্যতম। হাইমচরে মহান মুক্তিযুদ্ধের বিজয় মেলাসহ বিভিন্ন সাংস্কৃতিক অনুৃষ্ঠানে তাঁর অংশগ্রহন অতুলনীয় বলে জানান স্থাণীয় কয়েকজন। হাইমচরের ব্যবসায়ী মফিজ মিজি জানান, জাহাঙ্গীর হোসেন বেপারী মানুষের উপকারে সব সময় নিজেকে উজার করে দেন।  সকলের সুখ দুঃখে পাশে থাকার চেষ্টা করেন।
হুমায়ুন বেপারী বলেন, মাননীয় শিক্ষা মন্ত্রী ডাঃ দিপু মনি এমপির হাতকে শক্তিশালী করার জন্য জাহাঙ্গীর হোসেন বেপারী যুবলীগের সকলকে নিয়ে দিনরাত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। ছিদ্দিকুর রহমান মাঝি বলেন, মাননীয় শিক্ষা মন্ত্রী ডাঃ দিপু মনি এমপির একজন সৈনিক হিসেবে জাহাঙ্গীর বেপারীর চাওয়া পাওয়া বলতে দেখিনি। সব সময় ত্যাগ স্বিকার করতে ও ভালোবাসতে দেখেছি।
হাইমচর যুবলীগের আহবায়ক জাহাঙ্গীর হোসেন বেপারীর সাথে আলাপকালে তিনি জানান, আমি মাননীয় শিক্ষা মন্ত্রী ডাঃ দিপু মনি এমপি মহোদয়ের আদর্শে উজ্জিবীত হয়ে যুবলীগের প্রতিনিধি হিসেবে সাধারন মানুষের সুখে দুঃখে এগিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করি। আমার ক্ষুদ্র প্রয়াস থেকে বর্তমান সরকারের যে অভূতপূর্ব উন্নয়ন তা মানুষের মাঝে শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দিপু মনি এমপির পক্ষ থেকে তুলে ধরার চেষ্টা করি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার সু-দৃষ্টিতে, শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দিপু মনি এমপির সার্বিক সহযোগিতায় হাইমচরে ব্যপক উন্নয়ন হয়েছে। রাস্তাঘাট উন্নত করন, নদীভাঙ্গন থেকে রক্ষায় স্থায়ী বাঁধ নির্মানসহ স্কুল-কলেজ সকল ক্ষেত্রে উন্নয়নের ছোঁয়া লেগেছে ব্যাপক। হাইচরের উন্নয়নে মাননীয় শিক্ষা মন্ত্রী ডাঃ দিপু মনি এমপির অবদান অনেক যা পূর্বে কখনো ছিলোনা। এসব উন্নয়নের কারনেই মানুষ উপজেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগসহ অঙ্গসহযোগী সংগঠনকে ভালোবাসে। সে কারনেই হয়তো আমাকেও সাধারন মানুষ ভালোবাসে। তবে ইদানিং একটি মহল আমার এই জনপ্রিয়তায় ঈর্ষাপরায়ন হয়ে নানা ধরনের ষড়যন্ত্র করার চেষ্টা করছে। যত বাঁধা বিপত্তি-ই আসুক না কেন- আমি আওয়ামীলী যুবলীগের একজন কর্মী হিসেবে এবং শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দিপু মনি এমপি মহোদয়ের আদর্শের সৈনিক হিসেবে আজীবন কাজ করে যাবো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category