শুক্রবার, এপ্রিল ১০, ২০২০




করোনা প্রতিরোধ এবং একজন মাশরাফির গল্প

মো. নাছির উদ্দীন : প্রাণঘাতী কোভিড-১৯ করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে স্থবির হয়ে পড়েছে জনজীবন। সারাবিশ্বের মতো বাংলাদেশেও চলছে লকডাউন। প্রতিদিনই বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো আমাদের দেশেও বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। নভেল করোনাভাইরাস মোকাবিলায় সরকারের তরফ থেকেও আসছে নতুন নতুন নির্দেশনা। যা বাস্তবায়নে মাঠ পর্যায়ে প্রশাসনের সঙ্গে ভীষণ ব্যস্ত সময় পার করছেন জনপ্রতিধিরাও। নড়াইল-২ আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ায় ব্যতিক্রম নন বাংলাদেশ জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক ও সাংসদ মাশরাফি বিন মুর্তজাও। নিজ নির্বাচনী এলাকায় করোনার সংক্রমণ প্রতিরোধে ও অস্বচ্ছল জনগনের সেবায় নিয়েছেন নানা কল্যাণমুখী উদ্যোগ। শুধু সরকারি উদ্যোগই নয়, আছে ব্যক্তিগত উদ্যোগও।
নিজের দাতব্য প্রতিষ্ঠান ‘নড়াইল ফাউন্ডেশন’র প্রধান হিসেবে ইতোমধ্যেই দৃষ্টান্ত স্থাপনকারী সব পদক্ষেপ গ্রহণ করেছেন।
মাশরাফি বিন মুর্তজা দেশের জন্য সবসময়ই নিবেদিত প্রাণ। লাল-সবুজের হয়ে যখন ক্রিকেট খেলেন তখন ইনজুরিযুক্ত হাঁটু নিয়ে সেরাটি উজাড় করে দেন, তেমনি জনপ্রতিনিধি হয়েও দেশ সেবায় নিজেকে উজাড় করে দিচ্ছেন। মহামারী করোনাভাইরাস প্রতিরোধে নিজ এলাকার মানুষের কল্যাণে তিনি কী করছেন তা ইতোমধ্যেই দেশের সংবাদ মাধ্যমগুলো ইতিমধ্যই প্রচার করেছে।
করোনা ছাড়াও সাধারণ জনগণের কথা চিন্তা করে ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল স্বাস্থ্যসেবা চালু করেছেন মাশরাফি বিন মুর্তজা। ‘ডাক্তারের কাছে রোগী নয়, রোগীর কাছে ডাক্তার’ শ্লোগানকে সামনে রেখে, গত ৫ এপ্রিল থেকে নড়াইল জেলায় ভ্রাম্যমাণ স্বাস্থ্যসেবা চালু করেছেন। অ্যাম্বুলেন্স নিয়ে যারা রোগীর বাড়িতে গিয়ে দিয়ে আসছেন চিকিৎসা সেবা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category