রবিবার, আগস্ট ৯, ২০২০




করোনাভাইরাস: নতুন শনাক্ত ২৪৮৭, মৃত ৩৪

মো. নাছির উদ্দীন : দেশে কোভিড-১৯ প্রাদুর্ভাবের ১৫৫তম দিনে গত ২৪ ঘণ্টায় ২ হাজার ৪৮৭ জনের দেহে করোনাভাইরাসের উপস্থিতি শনাক্ত হয়েছে। আক্রান্তদের মধ্যে ৩৪ জন মারা গেছেন। এসময়ে সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৭৬৬ জন। করোনাভাইরাস সংক্রান্ত নিয়মিত অনলাইন বুলেটিনে এসব তথ্য জানান স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।
তিনি বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় ১১ হাজার ১১টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়। পরীক্ষা করা হয়েছে ১০ হাজার ৭৫৯টি। এ নিয়ে দেশে মোট নমুনা পরীক্ষা করা হলো ১২ লাখ ৬০ হাজার ৩১৯টি। নমুনা পরীক্ষার তুলনায় গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ২৩ দশমিক ১২ শতাংশ।
তিনি বলেন, নতুন নমুনা পরীক্ষায় আরও ২ হাজার ৪৮৭ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মোট আক্রান্ত হয়েছেন ২ লাখ ৫৭ হাজার ৬০০ জন। মোট শনাক্তের হার ২০ দশমিক ৪৪ শতাংশ। আক্রান্তদের মধ্যে মারা গেছেন আরও ৩৪ জন। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ৩ হাজার ৩৯৯-এ। শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৩২ শতাংশ।
ডা. নাসিমা আরও বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৭৬৬ জন। সবমিলিয়ে এ পর্যন্ত সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১ লাখ ৪৮ হাজার ৩৭০ জন। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৫৭ দশমিক ৬০ শতাংশ।
ডা. নাসিমা বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা সংক্রমণে দেশে আরো ৩৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এঁরা ৩১ জন পুরুষ এবং তিনজন নারী। এঁদের বয়স ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে একজন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে চারজন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে পাঁচজন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ছয়জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ১১ জন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে ছয়জন এবং ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে একজন। এ নিয়ে দেশে করোনায় এ পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে তিন হাজার ৩৯৯ জনের।
এ পর্যন্ত যাঁরা মৃত্যুবরণ করেছেন তাঁদের মধ্যে পুরুষ দুই হাজার ৬৮৬ জন এবং নারী ৭১৩ জন। আর বয়স বিবেচনায় এ পর্যন্ত যাঁরা মৃত্যুবরণ করেছেন তাঁরা এঁদের বয়স ০ (শূন্য) থেকে ১০ বছরের মধ্যে ১৮ জন, ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে ৩৩ জন, ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে ৮৯ জন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে ২১৮ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ৪৭১ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ৯৭১ জন এবং ষাটোর্ধ এক হাজার ৫৯৯ জন।
জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় যে ৩৪ জনের মৃত্যু হয়েছে তাঁরা ঢাকা বিভাগের ১৪ জন, চট্টগ্রাম বিভাগের ছয়জন, খুলনা বিভাগের সাতজন, রাজশাহী বিভাগের চারজন, ময়মনসিংহ বিভাগের একজন এবং রংপুর বিভাগের দুইজন। হাসপাতালে মারা গেছেন ৩২ জন এবং বাসায় দুইজন।
বিভাগ অনুযায়ী এ পর্যন্ত যাঁরা মৃত্যুবরণ করেছেন তাঁরা ঢাকা বিভাগের এক হাজার ৬২৭ জন, চট্টগ্রাম বিভাগের ৮০৪ জন, রাজশাহী বিভাগের ২১৩ জন, খুলনা বিভাগের ২৫৯ জন, বরিশাল বিভাগের ১৩২ জন, সিলেট বিভাগের ১৫৮ জন, রংপুর বিভাগের ১৩৪ জন এবং ময়মনসিংহ বিভাগের ৭২ জন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category