বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর ৫, ২০১৯




কচুয়া স্বাস্খ কমপ্লেক্সে ডাক্তারদের অপেক্ষায় দুস্থ রোগিদের ভোগান্তি

 

মফিজুল ইসলাম বাবুলঃ  অফিস টাইমের সকাল সাড়ে ১০টায়ও ডাক্তার না আসায় অপেক্ষার প্রহরে ভোগান্তির শিকার হচ্ছে কচুয়া উপজেলা স্বাস্খ কমপ্লেক্সের রোগিরা।

বৃহস্পতিবার (০৫ সেপ্টেম্বর) এ সময়ে স্বাস্খ কমপ্লেক্সে গেলে দেখাযায় ভারপ্রাপ্ত মেডিকেল অফিসার ডাঃ মোঃ সোহেল রানার ২২নং কক্ষ তালা বদ্ধ থাকায় পালাখাল মডেল ইউনিয়নের সেংগুয়া গ্রামের শ্বাস কষ্টের রোগি সফিকুল ইসলামসহ আরো অনেকে টিকেট কেটে অপেক্ষার প্রহরে ভোগান্তির শিকার হয়।

ভোক্তভোগিরা জানান, সকাল ৯টার সময় এসে ডাক্তার সোহেল রানার জন্য অপেক্ষা করতে থাকে। কচুয়া পৌরসভার কোয়া গ্রামের সঞ্জিত জানান, আমিও ৯টার সময় এসে ডাঃ সোহেল রানার জন্য অপেক্ষা করছি। এখন সাড়ে ১০টা বাজে তিনি আসেনি।

সঞ্জিত আরো জানান,আমি খোঁজ নিয়ে দেখেছি তিনি কোয়াটারে নিজ বাসায় প্রাইভেট রোগি দেখছেন। এ সসময় ফোনে ডাঃ সোহেল রানার সাথে কথা হলে কোয়াটারে রোগি দেখার বিষয়টি সত্য নয় বলে জানান এবং আপনি বসেন আমি অফিসে আসছি। স্বাস্খ কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা ডাঃ সালাহ উদ্দীন মাহমুদ সম্প্রতি থেকে অসুস্থ্য থাকায় ডাঃ সোহেল রানা ভাবপ্রাপ্ত আবাসিক মেডিকেল অফিসার হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। বর্তমানে ডাঃ সোহেল রানাসহ সার্বক্ষণিক ৪জন মেডিকেল অফিসার থাকলেও তাদের মধ্যে ২/১জন নিয়মিত অফিস টাইমে কর্তব্য পালন না করে বাহীরে প্রাইভেট হাসপাতালে রোগি দেখারও অভিযোগ পাওয়াগেছে। কনসালটেন্ট ডাক্তার রয়েছে ৪ জন। তাও তারা সাপ্তায় ৩দিন আসে বলে ডাঃ সোহেল রানা জানান। সবমিলিয়ে স্বাস্খ কমপ্লেক্সটিতে ডাঃ সংকটসহ দালালদের দৌরাত্ম্য এবং বিভিন্ন সমস্যায় রোগিদের ভোগান্তির কোনো অন্তঃনেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category