সোমবার, ফেব্রুয়ারি ১০, ২০২০




আইসিসি অনূর্ধ্ব -১৯ বিশ্বকাপ : ভারতকে হারিয়ে শিরোপা জিতলো বাংলাদেশ

মো. নাছির উদ্দীন : দুই ওপেনারের ব্যাটে শুরুতেই চড়াও হয় ভারতীয় বোলারদের ওপর। বিশ্বকাপ জয়ের জন্য ১৭৮ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে উড়ন্ত সূচনা এনে দেন দুই উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান তানজিদ হাসান ও পারভেজ আহমেদ ইমন। ওপেনিং জুটিতেই দলীয় সংগ্রহ ৫০ রান স্পর্শ করে। হঠাৎই বাংলাদেশের সংগ্রহ বিনা উইকেটে ৫০ থেকে ৬৫/৪-এ পরিনত হয়। চরম ব্যাটিং বিপর্যয়ে তবে কি আরেকটি স্বপ্নের অপমৃত্যু হতে চলছে? কোটি কোটি টাইগার সমর্থকদের হৃদয়ে রক্তক্ষরণ! তবে কি আরেকটি ভারত ট্র্যাজেডি হতে চলছে?

দলীয় ৮৫ রানে পঞ্চম ১০২ রানে যখন ষষ্ট উইকেটের পতন হয়, জুনিয়র টাইগারদের পরাজয় তখন সময়ের ব্যাপার মনে হচ্ছিল। তখনই আহত হয়ে আগেই মাঠ ত্যাগ করা পারভেজ আহমেদ ইমন খুড়িয়ে খুড়িয়ে মাঠে প্রবেশ করলেন। অধিনায়ক আকবর আলীকে যোগ্য সঙ্গ দেয়ার পাশাপাশি সপ্তম উইকেট জুটিতে গড়েন ৪১ রানের মহামূল্যবান এক পার্টনারশীপ।ব্যাক্তিগত ৪৭ এবং দলীয় ১৪৩ রানের মাথায় ইমন আউট হয়ে গেলে আবারও শিরোপা জয়ে ধাক্কা খায় বাংলাদেশ। অধিনায়ক আকবর আলী ঠান্ডা মাথায় রাকিবুল হাসান নিয়ে এগুতে থাকেন। ৪১ ওভারে দলীয় ১৬৩ রানের মাথায় বৃষ্টির বাঁধায় কিছু সময় খেলা বন্ধ থাকে। খেলা যখন আবারও শুরু হয়, তখন বাংলাদেশের জন্য লক্ষ্য দাঁড়ায় ৪৬ ওভারে ১৭০ রান। আকবর আলী-রাকিবুল হাসান ২৩ বল হাতে রেখে জয়ের বন্ধরে পৌঁছে দেয়। সেই সাথে প্রথমবারের মতো আইসিসির বৈশ্বিক কোনো টুর্নামেন্টের শিরোপা জিতলো জুনিয়র টাইগাররা। ম্যাচ সেরা অধিনায়ক আকবর আলী ৪৩ রানে অপরাজিত থেকে দলকে জিতিয়ে মাঠ ত্যাগ করেন।

এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই ভারতকে চেপে ধরে বাংলাদেশের বোলাররা। যার ফলে ৪৭.২ ওভারে ১৭৭ রানে অলআউট হয়ে যায় ভারত। ব্যাট করতে নামার পর বাংলাদেশের বোলার অভিষেক দাস শুরুতেই ফিরিয়ে দেন ভারতের ওপেনার সাক্সেনাকে। এরপর জাসওয়াল এবং তিলক ভার্মা মিলে ৯৬ রানের জুটি গড়েন।

এই জুটিতে ভাঙন ধরান তানজিম হাসান সাকিব। এরপর শরিফুল ইসলাম অ্যাকশনে এসে ফিরিয়ে দেন ৮৮ রান করা জাসওয়ালকে। পরের বলেই তিনি তুলে নেন আরেক ব্যাটসম্যান, সিদ্ধেস ভিরকে।

পরপর দুটি রানআউট এবং অভিষেক দাসের আবারও অন অ্যাকশনে এসে ভারতকে চেপে ধরার পরই তারা অলআউট হয়ে গেলো ১৭৭ রানে।

অভিষেক দাস নেন ৩ উইকেট। শরিফুল ইসলাম এবং তানজিম হাসান সাকিব নেন ২টি করে উইকেট। এছাড়া রাকিবুল হাসান নেন ১টি উইকেট।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category